Fri. Sep 30th, 2022
গ্লোবাল বিজনেস এন্ড সিএসআর অ্যাওয়ার্ড অনুষ্ঠিত

সম্প্রীতি হয়ে গেলো রেডিসন হোটেলে গ্লোবাল বিজনেস সিএসআর (CSR) অ্যাওয়ার্ড।

বরাবরই হারনেট টেলিভিশন নারী ক্ষমতায়ন ও সমাজ উন্নয়নমূলক কাজ করে আসছে। এরই মধ্যে নানা ইভেন্টও তারা করছে । এরই ধারাবাহিকতায় ‍সম্প্রতি ঘটে যাওয়া গ্লোবাল বিজনেস সিএসআর (CSR) অ্যাওয়ার্ড তার আর একটি অধ্যায়। এই কোভিড-১৯ মহামারীতে যে সকল ব্যক্তিগন এবং বড় বড় সংগঠন গুলি বিশাল ভূমিকা রেখেছেন, তাদেরকে মূল্যয়ন করার প্রয়োজনীয়তা অনেক। যে কারনে, গ্লোবাল বিজনেস সিএসআর (CSR) অ্যাওয়ার্ডে হারনেট টিভি কো-পার্টনার হিসাবে অংশগ্রহন করে ঐ সকল সুশীল সম্মানীত ব্যক্তিগনকে এবং একই সাথে বড় বড় সংগঠন গুলিকে মূল্যয়ন করার জন্য সীমিত আকারে করোনাকালীন সময়ে বলিষ্ট ভূমিকা রাখে।

এই আয়োজনটির উদ্যোগ নিয়েছে যৌথভাবে বাংলাদেশ আমেরিকান চেম্বার অব কমার্স (বিএসিসি) এবং ওয়াইসিসিআই । ব্যক্তি এবং বড় বড় সংগঠনগুলোকে মূল্যয়ন করার পাশাপাশি যেহেতু হারনেট টেলিভিশন নারী ক্ষমতায়ন কেন্দ্রিক এশিয়ার প্রথম টেলিভিশন এবং সর্বদাই বলে আসছে যে সকল অংশ গ্রহনে নারী-পুরুষ সমতায় বিশ্বাসী এবং টেকসই উন্নয়ন লক্ষমাত্রা এসডিজি-২০৩০ ধারন করে মহিলা ক্ষমতায়ন এবং জেন্ডার সমতার সাথে সরকারের লক্ষ্যকে পূরণ করতে পুরুষের সংগে সমতার সাথে হারনেট কাজ চালিয়ে যাবে। অন্যদিকে ৩য় লিঙ্গকে নিয়ে নতুন করে ভাবার এবং নতুন ভাবে উপস্থাপন করার । একইভাবে, অন্যন্য মিডিয়াও নারী ক্ষমতায়ন, ৩য় লিংগকে নিয়ে সামাজিক উন্নয়নে অনুপ্রেরনা যোগাচ্ছে। শুধু তাই নয়, কর্পোরেট, সফল ব্যক্তি ও সংগঠনগুলো হারনেট টিভি থেকে অনুপ্রানিত হয়ে গঠন করছে অনেক ফোরাম, গ্রুপ, ফাউন্ডেশন ও এনজিও যেখানে শুধু নারী কল্যান নিয়ে কথা বলা হয়। তাই হারনেটের উদ্যোগে পাওয়ার-কাপল অ্যাওয়ার্ডে সম্পৃক্ত করিয়ে দেওয়া হয় এই গ্লোবাল বিজনেস সিএসআর (CSR) অ্যাওয়ার্ডের মাধ্যমে, সাথে ছিল বিএসিসি এবং ওয়াইসিসিআই।

গুণীজনদের সম্মাননা দিলে তাদের উৎসাহ বাড়ে, নতুন নতুন উদ্যোগ নেয়, ফলে উপকৃত হয় সাধারণ মানুষ। তাই গুনীজনদের সম্মান জানানো উচিত বলে মন্তব্য করেছেন স্থানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী তাজুল ইসলাম। হারনেট টেলিভিশনের ফাউন্ডার আলিশা প্রধান বলেন, “ এই রকম বড় বড় কর্পোরেট এবং যেখানে এই সংগঠন গুলির পুরুষরা দেশ গঠনে ভূমিকা রাখছে, তাদেরকে এভাবে নারী ক্ষমতায়নের সাথে সরাসরি জরিত করতে পাওয়ার-কাপল অ্যাওয়ার্ড বলিষ্ট ভূমিকা রাখে। এছাড়াও আলিশা প্রধান হারনেটের বিশাল পরিবারের সহিত সংশ্লিষ্ট উপস্থিত সকল অতিথি ও দর্শকগনকে বিশেষ ধন্যবাদ জানান। ”

অতিথি হিসাবে ছিলো সমাজের সম্মানিয় কর্পোরেট ও ‍সফল ব্যক্তিগন। হারনেট টেলিভিশনের চেয়ারপারসন হোসনা প্রধান বলেন, “ সকলকে একত্রিত ভাবে কাজ করে নতুন প্রজন্মের যে সকল শিক্ষার্থী বা ব্যবসায়ীরা আছে তাদের জন্য পথ তৈরী করে দিতে হবে আমাদেরকেই ।” উক্ত অনুষ্ঠানে হারনেট টিভির ডিএমডি ফাইজা প্রধান উপস্থিত ছিলেন । একই সাথে হারনেট টিভির আগামী সকল পথ চলাতে দেশ উন্নয়নের বিবিধ কর্মকাণ্ডকে ত্বরান্বিত করার দৃঢ় প্রত্যয় ব্যক্ত করেন। এসময় তথ্য মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রী মোঃ মুরাদ হাসান বলেন, “কর্পোরেট সেক্টরসহ অন্যান্য সেক্টরের বিশিষ্টজনদের সম্মানিত করার এ আয়োজনের সংবাদ বেশি বেশি যাতে প্রচার হয় সেদিকে নজর দিতে হবে।” দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়ের  প্রতিমন্ত্রী ডাঃ মো. এনামুর রহমান এমপি বলেন, “কোভিডকালীন বছরটিতে অবদান রাখা ব্যক্তি ও প্রতিষ্ঠানকে সম্মানিত করায় আয়োজকদের প্রতি কৃতজ্ঞতা।”

তারকাসমৃদ্ধ গ্লোবাল বিজনেস এন্ড সিএসআর অ্যাওয়ার্ড-এ আজীবন সম্মাননা পেয়েছেন আব্দুল মোনেম লিমিটেড (মরনোত্তর), আলী যাকের (মরনোত্তর), নুরুল ইসলাম বাবুল (মরনোত্তর), সৈয়দ শাহরিয়ার আহসান (বীমা খাত), ফরিদা ইয়াসমিন (নারী সাংবাদিক) এবং এফ আর খান (প্রকৌশল সেবা)।

করোনা মহামারীতে মিডিয়া হিসাবে হারনেট টেলিভিশন সবচেয়ে বড় ভূমিকা রেখেছে । হারনেট টেলিভিশন মার্চের শুরু থেকে মাঠে নেমে যায় এবং গরিব, দুঃখী, সুবিধাবঞ্চিত মানুষদের মাঝে খাদ্য, বস্ত্র, ঔষধ ইত্যাদি দিয়ে নানাভাবে সেবা দেয় । সেই আঙ্গিকে HerNet কে ভূষিত করা হয় Global Business CSR এওয়ার্ডে “Best Media Contribution during Lockdown”. শুধু তাই নয়, বাংলাদেশ তথা দক্ষিণ এশিয়াতে মার্চের শেষ হইতে প্রথম অনলাইন লাইভ টক শো (দূর থেকে কাছে) শুরু করে। উক্ত টক শোতে অনুর্ধ বিশ্বের ৩০ জন নেতাসহ দেশের সকল ব্যবসায়ী, রাজনীতিবিদ, ডাক্তার, এবং অন্যন্য বরেন্য ব্যক্তিগনের সাথে যোগাযাগ ব্যবস্থা স্থাপন করে, যা পরবর্তীতে মিডিয়া এবং অন্যান্য সংগঠন অনুকরন করে ।

(CSR) অ্যাওয়ার্ড অনুষ্ঠানে আরো উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ কমিউনিকেশন স্যাটেলাইট কোম্পানি লিমিটেডের চেয়ারম্যান ড. শাহজাহান মাহমুদ এবং ইয়ুথ কমার্শিয়াল কমিউনিকেশন ইন্টারন্যাশনালের প্রেসিডেন্ট কামাল উদ্দিন, রেডিসনের ম্যানেজার আলেক্সাজান্ডার হোয়েসলার, ইউরোপীয়ান প্রধান এন্ড্রিওসসহ তিন শতাধিক অতিথি। এসময় বাংলাদেশ-আমেরিকান চেম্বার অব কমার্স, ইউএস (বাংলাদেশ চ্যাপ্টার)-এর ভাইস প্রেসিডেন্ট রাজু আলীম বলেন, করোনাকালীন সময়ে বিভিন্ন ব্যক্তি এবং প্রতিষ্ঠান যেভাবে বাংলাদেশের ১৭ কোটি মানুষকে সেবা দিয়েছে , সে হিসেবে সবাইকে পুরস্কৃত করতে পারলে ভালো লাগতো।

ঢাকা ওয়াসার মহাপরিচালক তাকসিম এ খান, পাওয়ার সেলের মহাপরিচালক মোহাম্মদ হোসাইন, বেঙ্গল গ্রুপের ভাইস চেয়ারম্যান জসিম উদ্দীন, জায়ান্ট গ্রুপের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ফারুক হাসান, মেট্রোসেম গ্রুপের ব্যবস্থাপনা পরিচালক মোহাম্মদ শহীদুল্লাহ, বিসিকের চেয়ারম্যান মোশতাক হাসান এনডিসি, বিকাশের সিইও কামাল কাদির, এসোসিয়েশন অব চার্ডার্ট সার্টিফায়েড একাউন্টেন্টস-এসিসিএ’র কান্ট্রি ম্যানেজার এহসানুল হক বাশার, প্রাইম ব্যাংকের চেয়ারম্যান ও ব্যবস্থাপনা পরিচালক মোহাম্মদ মাহতাবুর রহমান, প্রাইম ব্যাংকের চেয়ারম্যান তানজিল চৌধুরী, প্রধানমন্ত্রীর বিশেষ সহকারী ব্যারিস্টার শাহ আলী ফরহাদ, জেনিথ ফার্মাসিউটিক্যালসের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ডাঃ বেলাল উদ্দিন আহমেদ, আইগ্লোবাল ইউনিভার্সিটি এন্ড পিপলএনটেক এবং এনআরবি কানেক্ট টিভির চেয়ারম্যান ও সিইও আবু বকর হানিফ, ট্রাস্ট ব্যাংকের ব্যব্স্থাপনা পরিচালক ও সিইও ফারুক মঈনউদ্দিন আহমেদ, ব্যাংক এশিয়ার ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও সিইও আরফান আলী, গার্ডিয়ান লাইফ ইন্সুরেন্স, ফুডপান্ডার ব্যবস্থাপনা পরিচালক আমবারীন রেজা, মেডিসিন বিশেষজ্ঞ ডাঃ যুবায়ের আহমেদ, রুপায়ন সিটির ব্যবস্থাপনা পরিচালক মাহির এ খান, উইমেন এন্ড ই-কমার্সের প্রেসিডেন্ট নাসিমা আক্তার নিশা এবং বেস্ট সিএসআর অ্যাওয়ার্ড পেয়েছেন নানজিবা খান।

পাওয়ার কাপল অ্যাওয়ার্ড

পাওয়ার কাপল অ্যাওয়ার্ড পেয়েছেন প্রফেসর ডাঃ মামুন আল মাহতাব/ প্রফেসর ডাঃ নুজহাত চৌধুরী, ববি হাজ্জাজ/রাসনা ইমাম, তাহসিন আমান/নুসরাত ফিরোজ আমান, মোস্তফা খালিদ পলাশ/ সাজিয়া ইসলাম অন্তন, শেহনাজ সামস/ সিগমা মেহেদী, প্রফেসর ইমরান রহমান/হুমায়রা খান এবং সালাউদ্দিন চৌধুরী/মাকসুদা চৌধুরী ।

করোনা মহামারীতে মিডিয়া হিসাবে হারনেট টেলিভিশন সবচেয়ে বড় ভূমিকা রেখেছে । হারনেট টেলিভিশন মার্চের শুরু থেকে মাঠে নেমে যায় এবং গরিব, দুঃখী, সুবিধাবঞ্চিত মানুষদের মাঝে খাদ্য, বস্ত্র, ঔষধ ইত্যাদি দিয়ে নানাভাবে সেবা দেয় । শুধু তাই নয়, বাংলাদেশ তথা দক্ষিণ এশিয়াতে মার্চের শেষ হইতে প্রথম অনলাইন লাইভ টক শো (দূর থেকে কাছে) শুরু করে। উক্ত টক শোতে অনুর্ধ বিশ্বের ৩০ জন নেতাসহ দেশের সকল ব্যবসায়ী, রাজনীতিবিদ, ডাক্তার, এবং অন্যন্য বরেন্য ব্যক্তিগনের সাথে যোগাযাগ ব্যবস্থা স্থাপন করে, যা পরবর্তীতে মিডিয়া এবং অন্যান্য সংগঠন অনুকরন করে । সেই আঙ্গিকে গ্লোবাল বিজনেস সিএসআর (CSR) অ্যাওয়ার্ড অনুষ্ঠানটিতে হারনেট টিভিকে পার্টনার হিসাবে থাকাটা ছিলো অত্যন্ত গুরুত্বপুর্ণ ।

পুরস্কার বিতরণী ছাড়াও প্রদর্শিত হয়েছে তথ্য চিত্র, শর্টফিল্ম দ্য আনওয়ানটেড টুইন। এছাড়াও ছিল ফ্যাশন শো, নাচ, গান, সেলিব্রিটি এনড্রোসমেন্টসহ অনেক চমক।

গ্লোবাল বিজনেস এন্ড সিএসআর অ্যাওয়ার্ডের ইভেন্ট পার্টনার ছিলো টেলিভিশন এন্ড প্রেস মিডিয়া (টেলিপ্রেস), কো-পার্টনার ছিলো হারনেট টেলিভিশন এবং ইম্লিমেন্টেশন পার্টনার ছিলো দ্য ফ্লাগ গার্ল।

সর্বশেষে হারনেট টেলিভিশন থেকে বলা হয় যে, মার্চ মাসে আমরা আরো বড় বড় বেশ কিছু ইভেন্ট করব, যেগুলোতে শুধু নারী ক্ষমতায়নে কথা নয় আগামী দিনের নারী লিডারকে তৈরী করতেও অটল ভূমিকা রাখবে এবং সেই সাথে রাষ্টীয়ভাবে দেশে ও বিদেশী এনজিও (NGO) থেকে শুরু করে আরো অনেকে সংস্থা গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখবে, সেই পরিকল্পনা অনুযায়ী হারনেট টিভি ২০২২ সালের মধ্যে ৫০ টিরো বেশি দেশে হারনেট টিভির শাখা স্থাপন করে বহির্বিশ্বে নারীদের প্রতিনিধিত্ব করবে। হারনেট টিভি দৃড়তার সাথে তার গুরু কর্তব্য সমাজ ও দেশের জন্য চালিয়ে যাবে যেখানে সমতা পাবে নারী, উজ্জ্বল হবে দেশে, পূর্ণতা পাবে অর্থনীতি ।

By HerNet

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *