“আপন ভুবন” বৃদ্ধাশ্রম পরিদর্শনে আপ্লুত কিংবদন্তি সংগীতশিল্পী রুনা লায়লার

উপমহাদেশের কিংবদন্তি সংগীতশিল্পী রুনা লায়লা। ৫ দশকের বেশি সময় ধরে ১৮টি ভাষায় ১০ হাজারেরও বেশি গান করেছেন এই গুণী তারকা শিল্পী। সারা বিশ্বেই কুড়িয়েছেন কোটি মানুষের ভালোবাসা। অসংখ্য গানের মাধ্যমে শ্রোতাদের হৃদয়ে জায়গা করে নিয়েছেন তিনি। তবে এখনও গান গাওয়ার চেয়ে বেশি সময় দিচ্ছেন নানা ধরনের সামাজিক কর্মকাণ্ডের সঙ্গে।

এর ধারাবাহিকতায় এবার বৃদ্ধাশ্রমের বদ্ধ চার দেয়ালের মাঝে প্রিয় সন্তানের জন্য মুখ লুকিয়ে নিরবে যারা ফেলছেন চোখের অশ্রু। তাদের অতীতের সুখ গল্পগুলো আঁকড়ে ধরে বুকে পাথর চেপে জীবনযাপন করছেন যেসব অসহায় বাবা-মা। যাদের জীবনের সমস্ত সুখ-দুঃখকে বিসর্জন দিয়ে এসেছেন সন্তানের জন্য। সেসব মায়েদের সঙ্গে এবার দেখা করলেন কিংবদন্তি এই শিল্পী।

শনিবার (১৫ এপ্রিল) রাজধানীর উত্তরার ‘আপন ভুবন’ বৃদ্ধ মায়েদের সঙ্গে বেশ কিছুক্ষণ সময় কাটান তিনি। কিংবদন্তি এই শিল্পীকে পেয়ে ভীষণ খুশি হন আশ্রমের বৃদ্ধারা। মন খুলে গল্প করেন ও তাদের গান শোনান রুনা লায়লা।

এ প্রসঙ্গে রুনা লায়লা গণমাধ্যমে বলেন, ‘আশ্রমের মায়েদের মাঝে নিজের প্রয়াত মাকে খোঁজার চেষ্টা করছিলেন তিনি। আগেও বৃদ্ধাশ্রমে যাওয়ার অভিজ্ঞতা আছে রুনার। তবে এবার তিনি বেশ আবেগাপ্লুত হয়ে পড়েছিলেন। মায়েদের অনুরোধে রুনা লায়লা গান গেয়েও শোনান তাদের।’

ইতোমধ্যেই রুনা লায়লার এমন কাণ্ডে নেটমাধ্যমে প্রশংসার জোয়ারে ভাসছেন তিনি। সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে পোস্ট দেওয়ার পর থেকেই এটি ঘটেছে। তবে তিনি প্রশ্ন রেখেছেন সেসব সন্তানদের প্রতি যারা তাদের বাবা-মাকে বৃদ্ধাশ্রমে রেখে দিব্যি সুখে-শান্তিতে জীবন পার করছেন। এ কেমন সন্তান তারা।